Wednesday , March 28 2018
Home / আন্তর্জাতিক / বাস দুর্ঘটনায় পেরুতে ৪৮ জন নিহত

বাস দুর্ঘটনায় পেরুতে ৪৮ জন নিহত

পেরুতে পাহাড়ি সড়ক থেকে ১০০ ফুট নিচে সৈকতে পড়ে গেছে একটি বাস। এতে অন্তত ৪৮ জনের মৃত্যু হয়েছে। দেশটির স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয় জানিয়েছে, দুর্ঘটনা কবলিত বাসটি থেকে ৬ জনকে জীবিত উদ্ধার করে হাসপাতালে নেওয়া হয়েছে।

মঙ্গলবার দেশটির রাজধানী লিমা থেকে ১৩০ কিলোমিটার দূরে হুয়াচো জেলায় যাওয়ার পথে এ দুর্ঘটনা ঘটে। পাসামায়ো এলাকার যেখানে ‍দুর্ঘটনাটি ঘটেছে, সড়কের ওই অংশটিকে বলা হয় ‘কুরভা দেল দিয়াবলো’। যার অর্থ ‘শয়তানের বাঁক’।

পেরুতে প্রশান্ত মহাসাগরীয় ওই সড়কটি সবচেয়ে ঝুঁকিপূর্ণ বলে বিবেচনা করা হয়ে থাকে। বিষয়টি তদন্ত করে দেখার ঘোষণা দিয়েছে পেরুর পরিবহন মন্ত্রণালয়।

পেরুর স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয় জানিয়েছে, মঙ্গলবার ৫৫ জন যাত্রী নিয়ে বাসটি রাজধানী লিমা থেকে ১৩০ কিলোমিটার দূরে হুয়াচো জেলায় যাচ্ছিল। পাসামায়ো এলাকায় পৌঁছার পর বাসটি খাড়া পাহাড়ি সড়ক থেকে ১০০ ফুট নিচের পাথুরে সৈকতে পড়ে যায়। যেখানে দুর্ঘটনাটি ঘটেছে, সড়কের ওই অংশটিকে বলা হয় ‘কুরভা দেল দিয়াবলো’, বাংলায় এর অর্থ হল ‘শয়তানের বাঁক’। দুর্ঘটনার পর সৈকতে নিহতদের মরদেহ ছড়িয়ে থাকতে দেখা গেছে। তাদের মধ্যে মাত্র পাঁচ জন যাত্রী বেঁচে রয়েছেন বলে তারা জানতে পেরেছেন।

দেশটির পরিবহন খাতের প্রধান ডেনু এসক্রুদো বলেন, দ্রুতগামী একটি ট্রাক বাসটিকে পেছন থেকে ধাক্কা দেয়। এতে বাসের চালক নিয়ন্ত্রণ হারালে দুর্ঘটনা ঘটে। এ ঘটনায় তদন্ত শুরু হয়েছে। উদ্ধার কাজে হেলিকপ্টার ব্যবহার করা হচ্ছে।

পেরুতে সড়ক দুর্ঘটনা একটি সাধারণ ঘটনা। সরকারি পরিসংখ্যান অনুযায়ী, ২০১৬ সালে ৩ হাজার ৮০০টি সড়ক দুর্ঘটনা ঘটে। এতে ৪৯৩ জন লোক মারা যায়।

দুর্ঘটনায় হতাহতদের পরিবারের সদস্যদের প্রতি গভীর সমবেদনাও জানিয়েছেন তিনি।

পেরুর প্রেসিডেন্ট পেড্রো পাবলো কুচজাইনস্কি এক বিবৃতিতে বলেছেন, ‘এই দুর্ঘটনায় পুরো দেশ শোকাহত।’

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *